অগ্নিসংযোগের মধ্যে দিয়ে গাজীপুরে হরতাল চলছে

0
181

Hartal
গাজীপুর: গাজীপুরে জনসভা ঠেকাতে ১৪৪ ধারা জারি ও সভাস্থল ছাত্রলীগের দখল নেওয়ার প্রতিবাদে গাজীপুরে বিএনপির ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতাল অগ্নিসংযোগ ও ভাংচুরের মধ্যে দিয়ে শুরু হয়েছে। এছাড়া বিএনপি নেতা গয়েশ্বর চন্দ্র রায়কে গ্রেপ্তারের প্রতিবাদে আজ শনিবার দেশজুড়ে প্রতিবাদ সমাবেশ করবে ২০ দলীয় জোট।
হরতালের শুরুতেই সড়কে টায়ার জ্বালিয়ে বিক্ষোভ করে বিএনপির নেতাকর্মীরা। এসময় সড়ক অবরোধ করে তারা।
শহরের রাস্তাগুলিতে রিকশা ছাড়া তেমন কোনো যানবাহন চলাচল করতে দেখা যায়নি। বিএনপি কার্যালয় ও সমাবেশস্থল ভাওয়াল বদরে আলম সরকারি কলেজ মাঠ ঘিরে রেখেছে পুলিশ। শহরের বিভিন্ন পয়েন্টে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত কোনো পিকেটারকে আটক করতে পারেনি পুলিশ।
শুক্রবার রাতে খালেদা জিয়ার সঙ্গে বিএনপির জ্যেষ্ঠ নেতাদের বৈঠক শেষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে দলের সাংগঠনিক সম্পাদক ও গাজীপুর জেলা বিএনপির সভাপতি ফজলুল হক মিলন হরতাল কর্মসূচি ঘোষণা করেন।
তিনি বলেন, জনসভা ঠেকাতে ১৪৪ ধারা জারির মতো সরকারের অগণতান্ত্রিক আচরণের প্রতিবাদে শনিবার গাজীপুর জেলায় সকাল-সন্ধ্যা পালিত হবে।
বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেন, গাজীপুরে ১৪৪ ধারা জারি করে জনসভা করতে না দেয়ায় শনিবার সারাদেশে প্রতিবাদ সমাবেশ করবে ২০-দলীয় জোট।
পূর্বঘোষিত জনসভা করতে না দিয়ে সরকারের ১৪৪ ধারা জারির মতো অগণতান্ত্রিক পদক্ষেপে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান তিনি।
এদিকে গতরাতে টঙ্গী থানা বিএনপি কার্যালয়ে অগ্নিসংযোগ করা হয়েছে। ছাত্রলীগের কর্মীরা এ অগ্নিসংযোগ করেছে বলে বিএনপি অভিযোগ করছে। এতে অফিসের আসবাবপত্র পুড়ে যায়।
শনিবার একই স্থানে বিএনপি ও ছাত্রলীগ পাল্টাপাল্টি সমাবেশ ডাকায় অপ্রীতিকর পরিস্থিতি এড়াতে শুক্রবার দুপুর ২টা থেকে গাজীপুরে অনির্দিষ্টকালের জন্য ১৪৪ ধারা জারি করেছে প্রশাসন।
পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত এ ধারা বলবৎ থাকবে বলে জানিয়েছেন জেলা পুলিশ সুপার হারুন-অর-রশিদ।

Print Friendly, PDF & Email