উপজেলা নির্বাচন আগের তুলনায় ভাল হয়েছে: তথ্যমন্ত্রী

0
238

ঢাকা : তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, তিনি বলেন, এবারের উপজেলা নির্বাচন আগের তুলনায় অনেক বেশি ভাল হয়েছে। ভোটার উপস্থিতি একটু কম ছিল, তবে বিএনপি নির্বাচনে অংশ নিলে ভোটার উপস্থিতি কিছুটা বেশি হতো। তারপরও ভোটার উপস্থিতি একেবারে কম নয়। সোমবার সচিবালয়ে তৃতীয় ধাপে অনুষ্ঠিত উপজেলা পরিষদের তৃতীয় ধাপের নির্বাচন নিয়ে এসব কথা বলেন তিনি।

সম্প্রতি নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদারের করা মন্তব্য নিয়ে প্রশ্ন করা হলে তথ্যমন্ত্রী বলেন, নির্বাচন কমিশনার মাহবুব সাহেব নির্বাচন কমিশনের বাইরে গিয়ে একজন নির্বাচন কমিশনার হিসেবে তার ব্যক্তিগত মত দিতে পারেন কি না এটাই আমার প্রশ্ন।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, এবার উপজেলা নির্বাচনে ভোটার উপস্তিতি ছিল ৪০ শতাংশের বেশি। আমি নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে কথা বলেছি তারা এটা বলেছে। বিএনপি অংশ নিলে নিশ্চয় আরও বেশি ভোটার উপস্থিতি হতো। তবে বিএনপি যেভাবে নির্বাচন থেকে পালিয়ে বেরাচ্ছে তাতে তাদের রাজনীতি থেকে একেবারেই পালাতে হয় কি না তা নিয়ে আমার শঙ্কা হচ্ছে।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, সম্প্রতি মির্জা ফখরুল ইসলাম (বিএনপি মহাসচিব) বলেছেন, সরকার নাকি বিএনপি এবং ঐক্যফ্রন্ট ভাঙার চেষ্টা করছে। আসলে ঐক্যফ্রন্ট হলো তেল এবং পানির মিশ্রনের মতো। এটিকে ভাঙার কোনো প্রয়োজন এবং উদ্যোগ কোনোটারই প্রয়োজন নেই। আমরা চাই, বিএনপি টিকে থাকুক এবং গণতন্ত্রের ধারাবাহিকতা অব্যাহত থাকুক। কিন্তু তারা টিকে থাকার মতো কাজ করছে না।

মন্ত্রী বলেন, বিএনপির মধ্যে সিদ্ধান্ত নেওয়ার সামর্থ্যের অভাব রয়েছে, তারা নির্বাচনে অংশ নিয়েও কিছুটা নির্বাচনে অংশ না নিয়ে পালিয়ে গেছে জাতীয় নির্বাচন থেকে। এই পরিস্থিতি বিএনপিকে দুর্বল করে ফেলছে এবং জনগণ থেকে আলাদা করে ফেলছে। তাদেরই সিদ্ধান্ত নিতে হবে তারা এক সময় গণমুখী দল ছিল, এখন তারা কি গণমুখী দল থাকবে নাকি তারা গণবিচ্ছিন্ন দল হয়ে থাকবে।

চট্টগ্রামের পটিয়ায় নির্বাচন বন্ধ করে দেওয়ার বিষয়ে মন্ত্রী বলেন, দেখুন, পশ্চিম বাংলায় ৩০ শতাংশ স্থানীয় প্রতিনিধি বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছে। এটা কোনো সংকট নয়।

Print Friendly, PDF & Email