এইচটি ইমামের ক্ষমা চাওয়া উচিত: এমাজউদ্দিন

0
557

ঢাকা: লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হলেই ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের চাকরির বিষয়টি সরকার দেখবে বলে প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা এইচটি ইমাম যে বক্তব্য দিয়েছেন, এজন্য তার জাতির কাছে ক্ষমা চাওয়া উচিত বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্যেও বিশিষ্ট রাষ্ট্রবিজ্ঞানী অধ্যাপক এমাজউদ্দিন আহমেদ। শুক্রবার দুপুরে জাতীয় প্রেস ক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা প্রতিষ্ঠায় ৭ নভেম্বরের ভূমিকা শীর্ষক এক আলোচনা সভায় তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা লিখিত পরীক্ষায় পাস করলেই তরুণ ছাত্রদের চাকরির জন্য প্রতিশ্রতি দিয়েছেন। এজন্য তার (এইচ টি ইমাম) জাতির কাছে ক্ষমা চাওয়া উচিৎ। কারণ শুধু লিখিত পরীক্ষায় পাস করে যদি চাকরি পাওয়া যায়, তাহলে মেধাবীরা কোথায় যাবে?
অধ্যাপক এমাজউদ্দিন আহমেদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের মূল্যায়ন করে বলেন, সামরিক বাহিনীর কর্মী হয়েও এদেশের উন্নয়নে এতো নিখুঁত চিন্তার মানুষ একজনই ছিলেন। যিনি হলেন, শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান। তিনি আরো বলেন, যুবশক্তিকে কাজে লাগানো, নারীর ক্ষমতায়ন, অর্ধশিক্ষিত-নিরক্ষর যুবকদের বিদেশে পাঠানোসহ সব ধরনের পরিকল্পনা তিনি দেশের জন্য করে গেছেন। এর সুন্দর প্রতিফলন আজও দেশের জনগণ ভোগ করছে।
স্বাধীনতা ফোরামের সভাপতি আবু নাসের মুহাম্মদ রাহমতল্লাহর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা শামসুজ্জামান দুদু, নারায়ণগঞ্জ জেলা বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার পারভেজ আহমেদ, স্বাধীনতা ফোরামের সহসভাপতি ইশতিয়াক আহমেদ বাবুল প্রমুখ।

Print Friendly, PDF & Email