কর্মপরিকল্পনা ঘোষণা করলেন সিইসি

0
190

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজনৈতিক দলগুলোর জন্য লেভেল প্লেয়িং ফিল্ডের দায়িত্ব ইসির কিছু আছে। সরকারেরও কিছু আছে। পল্টন বা সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে মিটিং করতে পারবে কী পারবে না এটার দায় আমাদের না বলে উল্লেখ করেছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নূরুল হুদা। তিনি বলেন, সরকার কেন, যেকোনো প্রভাবমুক্ত হয়ে আমরা আগামী একাদশ সংসদ নির্বাচন করতে পারবো। লেভেল প্লেয়িং ফিল্ডের ব্যাপারে এখন আমাদের করণীয় কিছুই নেই।
রোববার সকালে ইসি প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠানের কর্মপরিকল্পনা প্রকাশ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সিইসি এই অভিমত ব্যক্ত করেন। ইসি সচিবের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন নির্বাচন কমিশনার বেগম কবিতা খানম।
সিইসি নূরুল হুদা বলেন, আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন আমাদেরকে ২০১৯ সালের ২৮ জানুয়ারির মধ্যে করতে হবে। ফলে নির্বাচনের জন্য দু’বছরেরও কম সময় হাতে আছে। এই নির্বাচনের জন্য আমরা সাতটি করণীয় দিক সনাক্ত করে কর্মপরিকল্পনা প্রণয়ন করেছি। তিনি বলেন, রাজনৈতিক দলগুলোর মিটিং করতে এখন পারবে কী পারবে না, এটার দায় আমাদের নয়। তফসিল ঘোষণার পর তাদের নিরাপত্তা ও মিটিং সুষ্ঠুভাবে করার দায় ইসির।
সিইসি বলেন, এখন আমরা সরকারকে কোনো অনুরোধ বা প্রভাব বিস্তার করতে পারি না। নির্বাচন কখন নাগাদ হতে পারে সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে সিইসি বলেন, বর্তমান সংসদের মেয়াদ শেষ হওয়ার ৯০ দিন আগে। তবে সরকার বা প্রেসিডেন্ট যদি এখন সংসদকে ভেঙ্গে দিয়ে নির্বাচনের আয়োজন করতে নির্দেশ দেন তাহলে তখন হবে।

Print Friendly, PDF & Email