জগন্নাথপুরের বিতর্কিত সাংবাদিক লালের বিরুদ্ধে আরেকটি ধর্ষণ মামলা

0
160

জগন্নাথপুর প্রতিনিধি: দীর্ঘদিন ধরে কারাভোগে থাকা জগন্নাথপুরের বিতর্কিত সাংবাদিক লালকে জড়িয়ে আরেকটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করা হয়েছে। গত ৩০ জানুয়ারি জগন্নাথপুর পৌর এলাকার হাসিমাবাদ গ্রামের মৃত বাবুল মিয়া কন্যা লাকি বেগম (১৭) বাদী হয়ে সুনামগঞ্জ আদালতে হাসিমাবাদ গ্রামের জয়নাল মিয়ার ছেলে গিয়াস উদ্দিন, মৃত কাছম আলীর ছেলে জয়নাল মিয়া ও জগন্নাথপুর গ্রামের ইসকন্দর আলীর ছেলে বিতর্কিত সাংবাদিক জহিরুল ইসলাম লালসহ ৩ জনকে আসামি করে একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন।
মামলায় উল্লেখ-করা হয়, বিগত ২০১৬ সালের ২৫ নভেম্বর রাতে গিয়াস উদ্দিন ভিকটিম লাকি বেগমকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করেন। বিষয়টি শালিসে নিস্পত্তি করার নামে বিগত ২০১৬ সালের ৩১ ডিসেম্বর রাতে বিতর্কিত সাংবাদিক জহিরুল ইসলাম লাল ভিকটিমকে ধর্ষণের চেষ্টা করেন। মামলাটি তদন্তের জন্য জগন্নাথপুর থানায় আসলে তদন্তের দায়িত্ব পান থানার এসআই আশরাফুল ইসলাম। গতকাল মঙ্গলবার মামলার তদন্তকারি কর্মকর্তা জগন্নাথপুর থানার এসআই আশরাফুল ইসলাম জানান, ঘটনাটি সত্য। তবে তদন্ত অব্যাহত আছে।
এ ব্যাপারে স্থানীয় ভূক্তভোগীরা জানান, অসহায় নির্যাতিতা মেয়েটি যেন ন্যায় বিচার পায়।
প্রসঙ্গত-অন্য একটি চাঁদাবাজি মামলায় দীর্ঘদিন ধরে বিতর্কিত সাংবাদিক লাল সুনামগঞ্জ জেল হাজতে কারাভোগ করছে। এছাড়া উপজেলার ভূরাখালি গ্রামের একটি মেয়ের সাথে অসামাজিক কাজে হাতেনাতে ধরে গ্রামবাসী লালকে গাছে বেঁধে পিটিয়ে থানায় হস্তান্তর করেন এবং আরো গুপ্তহত্যা মামলা ও চাঁদাবাজিসহ বিভিন্ন অপকর্মে লাল এলাকায় বিতর্কিত হয়ে পড়েন।

Print Friendly, PDF & Email