জগন্নাথপুরে মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে মামলা দায়ের

0
112
ফাইল ছবি

জগন্নাথপুর (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি: সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুরে পঞ্চম শ্রেণিতে পড়ুয়া এক মাদ্রাসা ছাত্রীকে দফায় দফায় ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ব্যাপারে জগন্নাথপুর থানায় মামলা দায়ের হয়েছে।

জানা গেছে, গত ২৬ অক্টোবর রাত প্রায় ১০ টার দিকে জগন্নাথপুর পৌর শহরের হাসিমাবাদ গ্রামের এক দিনমজুরের কিশোরী কন্যা ও ইকড়ছই মাদ্রাসার পঞ্চম শ্রেণির ছাত্রীকে জোরপূর্বক তার নিজ ঘর থেকে অপহরণ করে নিয়ে যায় একই গ্রামের তাজ উদ্দিনের ছেলে সুমন মিয়া (৩০) ও ইকড়ছই গ্রামের মন্ত মিয়ার ছেলে মিজানুর রহমান (৩০)। প্রথমে এ ছাত্রীকে অপহরণ করে উপজেলার কাড়াখাই গ্রামে নিয়ে এক ব্যক্তির বাড়িতে নিয়ে একটানা ৩ দিন রেখে তাকে একাধিকবার ধর্ষণ করা হয়। এখান থেকে উপজেলার বালিকান্দি গ্রামের আরেক ব্যক্তির বাড়িতে আরো ২ দিন রেখে তাকে পালাক্রমে ধর্ষণ করা হয়। ঘটনাটি আপোষে নিস্পত্তির কথা বলে সেখান থেকে পৌর এলাকার ইকড়ছই নয়াবাড়ি গ্রামের হাজী হারুন মিয়ার বাড়িতে আরো ২ দিন রেখে হাজী হারুন মিয়াও (৫৫) তাকে ধর্ষণ করেন বলে মামলায় উল্লেখ করা হয়।

এ ব্যাপারে রোববার ধর্ষিতা বাদি হয়ে জগন্নাথপুর পৌর এলাকার হাসিমাবাদ গ্রামের তাজ উদ্দিনের ছেলে সুমন মিয়া, ইকড়ছই গ্রামের মন্ত মিয়ার ছেলে মিজানুর রহমান ও ইকড়ছই নয়াবাড়ি গ্রামের মৃত এরাছত উল­ার ছেলে হাজী হারুন মিয়াসহ ৩ জনকে আসামি করে জগন্নাথপুর থানায় মামলা দায়ের করেছেন। জগন্নাথপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আসাদুজ্জামান জানান, এ ব্যাপারে থানায় মামলা রুজু হয়েছে এবং আসামিদের গ্রেফতারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

Print Friendly, PDF & Email