ট্যানারি মালিক সিন্ডিকেটের কারণেই চামড়ার দাম কম

0
36

ঢাকা: গত শনিবার থেকে আড়তদারদের কাছ থেকে ট্যানারি মালিকদের কাঁচা চামড়া কেনার কথা থাকলেও বাস্তবে তা শুরু হয়নি। যাও অল্প কিছু ক্রয় করা হচ্ছে তা নামমাত্র মূল্যে। এতে চামড়া নিয়ে বিপাকে পড়েছেন আড়তদাররা। দাম কম পাওয়ায় ট্যানারি মালিকদের সিন্ডিকেটকেই দুষছেন তারা। প্রতিদিন লবণ ছিটিয়ে চামড়া সংরক্ষণে খরচ বেড়ে যাওয়ায় কাঙ্ক্ষিত দাম পাওয়া নিয়ে শঙ্কায় আছেন তারা।

সোমবার (১৯ আগস্ট) সকাল থেকে চট্টগ্রামে ট্যানারি মালিকদের চামড়া কেনার কথা থাকলেও নগরীর আতুরার ডিপো চামড়ার আড়ৎসহ বেশ কয়েকটি আড়তে কাউকে দেখা যায়নি। চট্টগ্রামে সাড়ে ৫ লাখ চামড়া রফতানির লক্ষ্যমাত্রা থাকলেও নষ্ট হয়েছে প্রায় দেড় লাখ চামড়া।
চট্টগ্রাম কাচা চামড়া আড়তদার ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি আবদুল কাদের বলেন, বৈঠকে আলোচনা হয়েছে ট্যানারি মালিকদের কাছে আমরা চামরা বিক্রি করবো। উনারা আমাদের কাছ থেকে চামরা কিনবেন। বাকি পাওনা টাকা ২২ তারিখের বৈঠকে ঠিক হবে কবে দিবেন।
বকেয়া টাকা পরিশোধের শর্তে ট্যানারি মালিকদের কাছে চামড়া বিক্রি শুরু করেছেন রাজশাহীর চামড়া ব্যবসায়ীরা। নগরীর বেলপুকুর চামড়া আড়ত থেকে লবণ মিশিয়ে কাঁচা চামড়া ঢাকায় পাঠাচ্ছেন তারা। তবে সরকার নির্ধারিত দাম নিয়ে শঙ্কায় রয়েছেন তারা।
সরকার ছোট বড় চামড়া ১২’শ থেকে ১৪’শ টাকা নির্ধারণ করলেও টাঙ্গাইলে ৩শ’ থেকে ৭শ’ টাকা দরে চামড়া কিনছেন ট্যানারি মালিকরা। এতে চরম লোকসানে পড়েছেন মৌসুমী ব্যবসায়ী ও আড়তদাররা।
চামড়া ব্যবসায়ীরা বলেন, ট্যানারি মালিকরা ঠিক মতো আমাদের টাকা দিচ্ছে না।
ঘোষণার দুদিন পার হলেও দিনাজপুরের আড়তগুলোতে এখনো যোগাযোগ করেনি ট্যানারি মালিকরা । প্রতিদিন লবণ ছিটিয়ে চামড়া সংরক্ষণে খরচ বেড়ে যাওয়ায় কাঙ্ক্ষিত দাম নিয়ে শঙ্কায় রয়েছেন আড়তদাররা।
Print Friendly, PDF & Email