নেত্রকোনায় ২৭ বস্তা সরকারি চাল জব্দ

0
291

নেত্রকোনার পূর্বধলায় খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির (ওএমএস) ২৭ বস্তা চাল জব্দ করা হয়েছে। এসব বস্তায় প্রায় এক টন চাল ছিল। এ সময় দুটি মোটরসাইকেল জব্দ করা হয়। তবে এ ঘটনায় কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি।

বুধবার সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত পৃথক তিনটি স্থান থেকে চালের বস্তাগুলো পুলিশ জব্দ করে। চালগুলো পাশের ময়মনসিংহের তারাকান্দা উপজেলা থেকে পাচার হচ্ছিল। বর্তমানে তা পূর্বধলা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার (ইউএনও) তত্ত্বাবধানে হুগলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের হেফাজতে রাখা হয়েছে।
স্থানীয় বাসিন্দা ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, সকালে ময়মনসিংহের তারাকান্দা উপজেলার কালিখা থেকে তিনটি মোটরসাইকেলে করে তিন যুবক চারটি চালের বস্তা নিয়ে পূর্বধলার দিকে আসছিলেন। সকাল পৌনে ১০টায় পূর্বধলার হুগলা চৌরাস্তা এলাকায় পৌঁছালে হুগলা ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক সদস্য মুক্তিযোদ্ধা আবদুল মজিদ, স্থানীয় বাসিন্দা মো. আশরাফ আলী, হাবিব ব্যাপারীসহ কয়েকজন ওই যুবকদের মোটরসাইকেল থামিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করেন। এ সময় তাঁদের কথায় সন্দেহ হলে স্থানীয় লোকজন যুবকদের আটক করতে চান। একপর্যায়ে ওই তিন যুবক দুটি মোটরসাইকেল ও চারটি চালের বস্তা রেখে একটি মোটরসাইকেলে উঠে দ্রুত সটকে পড়েন। বিষয়টি পূর্বধলার ইউএনও উম্মে কুলসুম ও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ তাওহীদুর রহমানকে জানানো হয়। পরে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালিয়ে জটিয়াবর গ্রামের আতিক সরকারের চালকল থেকে ১৫ বস্তা ও জামকোনা গ্রামের আবুল কাশেমের বাড়ি থেকে আরও ৮ বস্তা চাল উদ্ধার করা হয়।

Print Friendly, PDF & Email