পোলিং এজেন্টদের বের করে দেয়ার অভিযোগ, গ্রেফতার

0
151

VOTE
ঢাকা: ভোটকেন্দ্র থেকে পোলিং এজেন্টদের বের করে দেয়ার অভিযোগ করলেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র প্রার্থী মির্জা আব্বাসের স্ত্রী আফরোজা আব্বাস। অনেককে পুলিশ গ্রেফতার করেছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি।
আফরোজা আব্বাস অভিযোগ করেন, ভোটগ্রহণ শুরুর ৫ মিনিটের মাথায় ১০/১৫টি কেন্দ্রে মির্জা আব্বাসের পোলিং এজেন্টদের কেন্দ্র থেকে বের করে দিয়েছে ছাত্রলীগ ও যুবলীগের সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা। কয়েকটি কেন্দ্রে পোলিং এজেন্টদের গ্রেফতারও করে পুলিশ। পোলিং এজেন্টদের কেন্দ্রে অবস্থান নিশ্চিত করতে তিনি বিভিন্ন কেন্দ্রে ঘুরে দেখছেন।
মনিপুর বালক এবং বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, মনিপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্র থেকে বিএনপি সমর্থিত প্রার্থীদের ১৫ জন পোলিং এজেন্টকে গ্রেফতার করে নিয়ে যায় পুলিশ। ভোটগ্রহণ শুরু হওয়ার ১৫ মিনিট আগেই তাদের গ্রেফতার করে নিয়ে যাওয়া হয়।
খিলগাঁও মডেল বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ কেন্দ্র থেকে ভোটগ্রহণের চিত্র সরাসরি সম্প্রচার করছিল কয়েকটি সংবাদ মাধ্যমের কর্মীরা। কিন্তু এক পর্যায়ে সেখান থেকে সম্প্রচার বন্ধ করে দেয় পুলিশ।
তেজগাও এলাকার বিভিন্ন কেন্দ্র থেকে বিএনপি সমমির্থত মেয়র প্রার্থী তাবিথ আওয়ালের পোলিং এজেন্টদের বের করে দেয়া হয়েছে। তেজগাঁও কলেজ,তেজগাও নিকেতনী বালিকা বিদ্যালয়েসহ বিভিন্ন কেন্দ্র থেকে এসব পোলিং এজেন্টদের বের করে দেয়া হয়। এধরণের অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে তাবিথ আওয়াল তেজগাও পরিদর্শন করেন। তবে এসময় এসব কলেজে তাকে ঢুবতে বাঁধা দিতে চেষ্টা করা হয়। তাবিথ আওয়াল তেজগাঁও কলেজের প্রিসাইডিং অফিসারের কাছে লিখিত অভিযোগ করেছেন। এসময় তিনি কর্মকর্তাদের তাদের ওপর অর্পিত দায়িত্ব সঠিকভাবে পালন করতে আহবান জানিয়েছেন।
এ দিকে, বনশ্রী আইডিয়াল স্কুল, রামপুরা একরামুন্নেসা স্কুল ও রামপুরা মহানগরী প্রজেক্ট মোহাম্মদীয় দারুল উলুম মাদ্রাসাসহ রামপুরা-বনশ্রী এলাকার ভোটকেন্দ্রগুলোতে পোলিং এজেন্টদের উপস্থিতি দেখা গেছে কম। বনশ্রী আইডিয়াল স্কুলে ভোটারদের উপস্থিতি ছিল তুলনামূলক বেশি।
এদিকে, ভোটকেন্দ্রগুলোর বাইরে সরকার-দলীয় প্রার্থীদের ব্যাপক উপস্থিতি দেখা গেছে অধিকাংশ কেন্দ্রে।

Print Friendly, PDF & Email