বন্দরবাজারে পুলিশের সাথে বিএনপির সংঘর্ষ, আহত ৩০

0
273

বিশেষ প্রতিনিধি: নগরীর বন্দরবাজার এলাকায় পুলিশের সাথে বিএনপি নেতাকর্মীদের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এঘটনায় পুলিশসহ অন্তত ৩০ জন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এসময় ঘটনাস্থল থেকে ৭ বিএনপি নেতাকর্মীকে আটক করেছে পুলিশ।

গতকাল ৩ মার্চ রোববার সিলেট নগরীর বন্দরবাজার এলাকায় এঘটনা ঘটে।
জানা যায়, রোববার দুপুর ১২টার দিকে বন্দরবাজার এলাকায় সিলেট জেলা ও মহানগর আওয়ামীলীগের হরতাল বিরোধী সমাবেশ চলছিল। এসময় সিলেট জেলা ও মহানগর বিএনপির নেতাকর্মীরা রেজিষ্ট্রারী মাঠ থেকে হরতালের সমর্থনে একটি মিছিল নিয়ে বন্দরবাজারের দিকে অগ্রসর হয়। এসময় পুলিশ ও আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীরা বিএনপির মিছিলে বাঁধা দিলে সংঘর্ষ শুরু হয়। সংঘর্ষ চলাকালে পুলিশের একটি ভ্যানে আগুন ধরিয়ে দেয় বিক্ষোব্ধরা। এসময় পুলিশসহ অন্তত ৩০ জন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। তবে তাৎক্ষনিকভাবে আহতদের নাম ও পরিচয় জানা সম্ভব হয়নি।
এদিকে, এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে রোববার রাতেই এসএমপির কোতোয়ালী থানার এ.এস.আই ছাইম উল্লাহ বাদী হয়ে ১৫ জনের নাম উল্লেখ করে ৩৫ জনকে আসামী করে কোতোয়ালী থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। মামলা নং ৭, তারিখ ০৩/০৩/২০১৩।
মামলার আসামীরা হলেন- সিলেট মহানগর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান (৫০), মোগলাবাজার ইউনিয়ন বিএনপির সাধারণ সম্পাদক কলিম উল্লা (৪৬), সিলেট মহানগর বিএনপির সদস্য দিলু মিয়া (৩৫), সিলেট মহানগর ছাত্রদলের সভাপতি লোকমান আহমদ (৩০), সিলেট মদন মোহন কলেজ ছাত্রদলের সহ-সাধারণ সম্পাদক আজহারুল ইসলাম (২২), সিলেট মহাগর ছাত্রদলের সদস্য এহসানুল রশীদ সাজু (২৫), শহরতলীর মেজরটিলা এলাকার আব্দুর রহমানের পুত্র আব্দুল আলীম (২২), নগরীর উপশহর বি বøক এলাকার শফিক মিয়ার পুত্র নুরুল ইসলাম (৩২), টিলাগড় শাপলাবাগ এলাকার আছদ্দর চৌধুরীর পুত্র সাজু আহমদ (৩০), সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাইফুর রহমান হলের বাসিন্ধা ভেটেনারী অনুষদ ২য় বর্ষের ছাত্র বারি মিয়া (২২), এমসি কলেজের নতুন হলের বাসিন্ধা বাংলা বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র রেজা (২২), শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাইফুর রহমান হলের বাসিন্ধা ও অর্থনীতি বিভাগের ১ম বর্ষের ছাত্র তারেক (২০)।

Print Friendly, PDF & Email