বাংলাদেশের আইনের শাসন ইউএনসিএসি’র সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ: আইনমন্ত্রী

0
244

ঢাকা: আইনমন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, বাংলাদেশের আইনের শাসন ইউএনসিএসি’র সম্পদ পুনরুদ্ধার সংক্রান্ত অধ্যায়-৫-এর সঙ্গে বেশ সামঞ্জস্যপূর্ণ। উদাহরণস্বরূপ তিনি বলেন, সম্পদ পুনরুদ্ধার সংক্রান্ত বিষয়ক মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন-২০১২, সন্ত্রাস বিরোধী আইন-২০০৯ এবং মিউচুয়াল লিগ্যাল অ্যাসিস্ট্যান্স ইন ক্রিমিনাল এ্যাক্ট-২০১২ মধ্যে এর পরিপূর্ণ বিধান রয়েছে। আজ এখানে প্রাপ্ত একটি বার্তায় বলা হয়েছে, আইনমন্ত্রী জাতিসংঘের দুর্নীতিবিরোধী কনভেনশনের (ইউএনসিএসি) ৭ম অধিবেশনে বাস্তবায়ন পর্যালোচনা পর্বে ভাষণ দিচ্ছিলেন। এই কনভেনশনের আয়োজন করেছে ভিয়েনাস্থ ইউনাইটেড নেশনস অফিস অন ড্রাগ এন্ড ক্রাইম। এছাড়াও অধিবেশনে তিনি একটি কান্ট্রি পেপার উপস্থাপন করেন। সেখানে বাংলাদেশের সম্পদ পুনরুদ্ধারের অনেক সাফল্যের গল্প আছে।

তিনি বলেন, সাবেক প্রধানমন্ত্রী খালেদা জিয়ার পুত্র আরাফাত রহমান ও তারেক রহমানের বিরুদ্ধে পরিচালিত বিচারে তাদের ছয় বছর কারাদণ্ডে দণ্ডিত করা হয় এবং টাকা জব্দের আদেশ পাস করা হয়। ২০১২ এবং ২০১৩ সালে বাংলাদেশ সফলভাবে ২ দশমিক ২৬ মিলিয়ন ডলার ফিরিয়ে এনেছে। প্রথম পর্বের পর্যালোচনা উল্লেখ করে তিনি বললেন, এই পর্যালোচনা আমাদের অনেক নতুন ধারণা দিয়েছে, এতে আমাদের সমাজ থেকে দুর্নীতি দূর করতে এবং সুশাসন বাস্তবায়নের লক্ষ্য অর্জনে সাহায্য করেছে, যা আসলে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্ন ছিলো। মন্ত্রী বলেছেন, দুর্নীতি দমনের ক্ষেত্রে ইউএনসিএসি’র অধ্যয়-২-এর অনেক কর্মসূচি বাংলাদেশের দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) বাস্তবায়ন করেছে। এ ছাড়া, দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটি নয়টি মহানগরে, ৬২টি জেলায় ও ৪২১টি উপজেলায় সচেতনতা তৈরী করতে সমাজের সদস্যদের নিয়ে ব্যাপক কর্মসূচি গ্রহণ করেছে।

Print Friendly, PDF & Email