যে দেশে গণতন্ত্র চাপা দেয়া হয় সেখানেই জঙ্গিবাদের উৎথান ঘটে: মির্জা আব্বাস

0
217

ঢাকা: আওয়ামী লীগের অসৎ উদ্দেশ্যে থেকে সজাগ থাকতে দলের নেতাকর্মীদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ও ঢাকা মহানগরীর আহ্বায়ক মির্জা আব্বাস। তিনি বলেন, বিএনপিকে ধ্বংস করা আওয়ামী শাসকদলের দলের একমাত্র এজেন্ডা। তাই নেতাকর্মীদের সজাগ থাকতে হবে। শনিবার রাজধানীর নয়া পল্টন ভাসানী ভবন মিলনায়তনে ঢাকা মহানগর বিএনপির এক যৌথ সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

মির্জা আব্বাস বলেন, বিএনপি নেত্রী খালেদা জিয়াসহ আমাদের সকল নেতাকর্মীকে জেলে নিয়ে আওয়ামী লীগ একাই রাজত্ব চালাবে বলে ভাববেন। এটা বাংলাদেশের জনগণ মেনে নিবে না। তারা হয়তো ভুলে গেছে, বিএনপি থেমে থাকার দল নয়। বিএনপি জাতীয়বাদী শক্তি তারা জনগণকে সাথে নিয়ে জেগে উঠবে।

তিনি বলেন, সরকার পতন কিংবা ক্ষমতায় যেতে বিএনপির আন্দোলন নয়। বিএনপি মানুষের গণতান্ত্রিক অধিকার প্রতিষ্ঠায় রাজপথে আন্দোলন করে যাচ্ছে। কাউকে ছোবল দিতে বা আক্রমন করতে নয়, আমরা চাই স্বাধীনতা স্বার্বভৌমত্বে অস্থিত্ব রক্ষা করতে।

দলের নেতাকর্মীদের উদ্দেশে বিএনপি নেতা আব্বাস বলেন, বিগত আন্দোলনে যারা মাঠে নামেন নি তারা দয়া করে রেস্ট নেয়া বাদ দেন, নিজে বেঁচে থাকতে দেশের স্বার্থে রাজপথের আন্দোলনে শরীক হন। মনে রাখবেন খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে চার্জশিট আওয়ামী লীগের উদ্দেশ্য আছে। তারা উদ্দেশ্যে ছাড়া রাজনীতি করে। না তাই সবাইকে সজাগ থাকতে হবে। যে দেশে গণতন্ত্র চাপা দেয়া হয়, সেখানেই জঙ্গিবাদের উৎথান ঘটে বলেও মক্তব্য করেন মির্জা আব্বাস।

তিনি বলেন, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলায় চার্জশীট দেয়ার প্রতিবাদে আগামী ১৬ মে ঢাকা মহানগর বিএনপি সমাবেশ করবে। ইতোমধ্যে নয়াপল্টন বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সমানে এবং রাজধাণীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনষ্টিটিউশনে সমাবেশ করার অনুমতি চাওয়া হয়েছে। এছাড়া সমাবেশে অনুমতি পাবেন বলেও আশা প্রকাশ করেন মির্জা আব্বাস।

মির্জা আব্বাসের সভাপতিত্বে সভায় আরো বক্তব্য দেন- বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, যুগ্ম-মহাসচিব সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, অর্থবিষয়ক সম্পাদক আব্দুস সালাম, ঢাকা মহানগর বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক কাজীর আবুল বাশার। ঢাকা মহানহর বিএনপির বিভিন্ন ওয়ার্ডের নেতাকর্মীরাও সভায় যোগ দেন।

Print Friendly, PDF & Email