সিলেটে ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টা, লম্পট আটক

0
479
ফাইল ছবি

সিলেট নগরীর শিবগঞ্জে পঞ্চম শ্রেণীর এক মাদ্রাসা ছাত্রীকে ধর্ষণের চেষ্টার দায়ে জসিম উদ্দিন (৩২) নামে একজনকে পুলিশে সোপর্দ করেছে স্থানীয়রা। সে কুমিল্লা জেলার লাঙ্গলকোট থানার পাইকুট গ্রামের মোঃ মনু মিয়ার পুত্র। বর্তমানে সে ঠাকুরপাড়া আকমল মিয়ার কলোনীর বাসিন্দা। মঙ্গলবার ভোর রাতে শিবগঞ্জের ঠাকুরপাড়ার আকমল মিয়ার কলোনীর একটি ঘরে এ ঘটনা ঘটে। নির্যাতিতা বিশ্বনাথের একটি মহিলা মাদ্রাসার পঞ্চম শ্রেণীর ছাত্রী। এ ঘটনায় ওই ছাত্রীর পিতা বাদি হয়ে জসিম উদ্দিনের বিরুদ্ধে শাহপরান থানায় ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগ এনে একটি মামলা দায়ের করেছেন। মামলার সংক্ষিপ্ত বিবরণে জানা গেছে, মঙ্গলবার ভোর ৪টা ২০ মিনিটে ফজরের নামাজ আদায় করতে নির্যাতিতার পিতা তার ১১ বছর বয়সী মাদ্রাসা পড়–য়া মেয়েকে ঘরে রেখে বাইরে তালা দিয়ে পার্শ্ববর্তী মসজিদে যান। এ সুযোগে জসিম উদ্দিন ঘরের বেড়া কেটে ভেতরে প্রবেশ করে ছাত্রীকে ঘুমন্ত অবস্থায় ধর্ষণের চেষ্টা চালায়। এক পর্যায়ে ছাত্রীর চিৎকারে প্রতিবেশীরা এগিয়ে এলে লম্পট জসিম পালিয়ে যায়। পরে তাকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করা হয়।

আদালত সূত্র জানায়, আজ মঙ্গলবার মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা শাহপরান থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো: আব্দুল মান্নান আটককৃত জসিম উদ্দিনকে আদালতে হাজির করেন। এ সময় তিনি মাদ্রাসা ছাত্রীর ২২ ধারায় জবানবন্দী রেকর্ড করে তাকে পিতার জিম্মায় দেয়ার জন্য মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট (আমালী-৩) মো: মামুনুর রহমান সিদ্দিকীর আদালতে আবেদন জানান। আদালত তা মঞ্জুর করেন। এ সময় আদালত আসামি জসিমকে জেল হাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

Print Friendly, PDF & Email