সেনা মোতায়েন না হলে নির্বাচন সুষ্ঠু হবে না: এমাজউদ্দীন

0
200

Dr. Emaz Uddin
ঢাকা: সিটি করপোরেশন নির্বাচনে সেনা মোতায়েন না হলে নির্বাচন সুষ্ঠু হবে না বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভিসি ও আদর্শ ঢাকা আন্দোলনের আহ্বায়ক অধ্যাপক ড. এমাজউদ্দীন আহমদ। এজন্য তিনি নির্বাচনের এক সপ্তাহ আগে ঢাকা ও চট্টগ্রামে সেনাবাহিনী মোতায়েনের দাবি জানিয়েছেন।
শুক্রবার জাতীয় প্রেস ক্লাবে বাংলাদেশ ডেমোক্রেটিক কাউন্সিল আয়োজিত ‘গুম, খুন, অপহরণ ও গ্রেফতার আতঙ্ক প্রেক্ষিত সিটি করপোরেশন নির্বাচন’ শীর্ষক এক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি একথা বলেন।
আয়োজক সংগঠনের সভাপতি এম এ হালিমের সভাপতিত্বে এতে আরো বক্তব্য রাখেন, বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা ব্যারিস্টার হায়দার আলী, স্বাধীনতা ফোরামের সভাপতি ও বিএনপি নেতা আবু নাসের মুহাম্মদ রহমতুল্লাহ, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক ড. মামুন আহমেদ, বিএনপি নেতা ব্যারিস্টার পারভেজ আহমেদ, মিয়া মোহাম্মদ আনোয়ার, সুরঞ্জন ঘোষ, হাজী লিটন, ইসতিয়াক আহমেদ বাবুল, এনডিপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মঞ্জুর হোসেন ঈসা প্রমুখ।
এমাজউদ্দীন আহমদ আরো বলেন, এক অস্বাভাবিক অবস্থায় সিটি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। এ অবস্থায় সেনাবাহিনী মাঠে থাকলে ভোটাররা সাহস নিয়ে ভোট দেয়ার সুযোগ পাবে। নির্বাচন কমিশনের উদ্দেশে তিনি বলেন, আমরা প্রতিযোগিতার সমতল ভূমি আশা করি না। তবে ভোটাররা যাতে নির্বিঘ্নে ভোটকেন্দ্রে যেতে পারে এবং প্রার্থীরা যেন মিছিল-মিটিং, সমাবেশ ও প্রচার-প্রচারণা চালাতে পারেন, সে ব্যবস্থা নিশ্চিত করুন। ৫ জানুয়ারির প্রহসনের নির্বাচন কলঙ্কজনক নির্বাচন নামে চিহ্নিত হয়ে আছে। তাই ২০১৪ সালে যে ঘটনাগুলো ঘটেছে তা যেনো আর না ঘটে।
সিটি নির্বাচনকে বিএনপি চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছে উল্লেখ করে এমাজউদ্দীন বলেন, সরকারকে শিক্ষা দেয়ার একটি মোক্ষম সুযোগ আমাদের সামনে এসেছে। আমরা এ নির্বাচনকে চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছি। আমরা চুপচাপ থাকতে চাই না। আশা করছি, চ্যালেঞ্জে জয়ী হব।
এ সময় বিএনপির তরুণ কর্মীদের উদ্দেশে তিনি বলেন, ভোটকেন্দ্রে নিজের ভোট দেবার পর তোমরা জায়গা ছেড়ে দিবে না, ভোটকেন্দ্র ও ব্যালট বাক্স পাহারা দেয়ার দায়িত্বও তোমাদের। তোমরা দায়িত্ব পালন করবে, বিজয় আমাদের নিশ্চিত।

Print Friendly, PDF & Email