অনলাইনে পণ্য কেনার আগে সতর্ক হোন: ডিএমপি

0
471

Logo DMP
ঢাকা: অনলাইনে পণ্য কেনার আগে সতর্ক হওয়ার পরামর্শ দিয়েছেন ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের দক্ষিণ বিভাগের উপ-কমিশনার কৃষ্ণপদ রায়। বৃহস্পতিবার দুপুর ১২ টার দিকে ঢাকা মহানগর পুলিশের মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে গণমাধ্যমের সহায়তায় তিনি নগরবাসীদের এ সতর্ক করেন।
কৃষ্ণপদ রায় বলেন, গাড়ী চুরির সক্রিয় সদস্যরা বিভিন্ন সময়ে গাড়ী চুরি করে তারা দৈনিক পত্রিকায় ও অনলাইন ভিত্তিক ক্রয়-বিক্রয় সেবা প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে বিজ্ঞাপন দিয়ে জন সাধারণের সঙ্গে প্রতারণা করে আসছিল।
ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের একটি দল রাজধানী বসুন্ধরা আবাসিক এলাকা, ইস্টার্ন প্লাজা ও আজিমপুর এলাকায় অভিযান চালিয়ে গাড়ী চোর ও ছিনতাই দলের পাঁচ সদস্যকে গেফতার করেছে। গ্রেপ্তারকৃতরা হলো- ইকবাল হোসেন ওরফে ইকবাল ওরফে কামাল ওরফে রানা ওরফে তানিম, মো.জাবেদ, মুশরেকিন আহমেদ রাব্বি ওরফে যুবরাজ, আলি হোসেন ও মো. মহাসিন।
এ সময়ে তাদের কাছ থেকে দুইটি প্রাইভেটকার, বিআরটিএর জাল কাগজপত্র, সিল, বিপুল সংখ্যক ব্যাংকের পে অর্ডার, নয়টি বিআরটিএর জাল রেজিস্ট্রেশন সনদপত্রের ফরম, ৩০টি নকল ফিটনেস সনদ পত্রের ফরম, ২০৬টি জাল কর পরিশোদ সনদপত্রের ফরম, ৫৮টি জাল মানি রিসিট ফরম, ৮৩৬টি সোনালী ব্যাংকের জাল পে অর্ডার, ৬০০টি প্রিমিয়াম ব্যাংকের জাল পে অর্ডার ফরম, ৯০০ টি মিউচ্যুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংকের জাল পে অর্ডার, ৮০০টি প্রাইম ব্যাংকের পে অর্ডার, ৮৬০টি ওয়ান ব্যংকের পে অর্ডারসহ মোট ৩৯৯৬ টি পে অর্ডার, বিআরটিএ, ইন্সুরেন্স কোম্পানী, ব্যাংক, পুলিশ কর্মকর্তার নাম সম্বিলিত ৮ টি সিল উদ্ধার করা হয়েছে।
তিনি বলেন, গ্রেফতারকৃতরা বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ভুয়া পে অর্ডারের মাধ্যমে জমি কেনা বেচার কাজে, টেন্ডার জমাদানের কাজ সহ বিভিন্ন ধরনের প্রতারণা করে থাকে। এ ধরনের পে অর্ডার ও ভুয়া কাগজপত্র তারা রাজধানীর নীলক্ষেতসহ বিভিন্ন ধরনের এলাকার প্রেস থেকে তৈরি করে আসছিল।
গোয়েন্দা পুলিশের ওই উপ-কমিশনার বলেন, গত সোমবার রাতে রাজধানীর বসুন্ধরা আবাসিক এলাকা থেকে কুখ্যাত গাড়ী চোর ও ছিনতাই দলের নেতা ইকবাল হোসেন, জাবেদ, মুশরেকিন আহমেদ রাব্বিকে গ্রেপ্তার করে। তাদের দেওয়া তথ্যমতে মিরপুর থানার মধ্য পাইকপাড়া এলাকা থেকে একটি এলিয়ন প্রাইভেটকার উদ্ধার করা হয়। শাহবাগ থানার বাংলামোটর লিংক রোড থেকে একটি এফ প্রিমিও প্রাইভেট কার উদ্ধার করা হয়। ওই গাড়ী থেকে জাল চেসিস নম্বরের অনুকূলে নকল ফিটনেস ও রেজিস্ট্রেশন সনদপত্র পাওয়া যায়। গ্রেফতারকৃত ইকবাল ও জাবেদ গাড়ী চুরি করে। জাবেদ জাল চেসিস নম্বর প্রতিস্থাপন করে, মুশরেকিন আহমেদ রাব্বি ওই চোরাই গাড়ীর রং পরির্বতনসহ নকল কাগজপত্র তৈরি করে বিভিন্ন দৈনিক পত্রিকায় ও ওএলএক্স ওয়েবসাইটে গাড়ি বিক্রির বিজ্ঞাপন দিয়ে চোরাই গাড়ি গুলো বিক্রি করে থাকে। উদ্ধারকৃত এলিয়ন প্রাইভেটকারটি গুলশান থানার মামলা নম্বর-০৫(৪)১৪ ধারা ৩৭৯পিসি ও এফ প্রিমিও প্রাইভেটকারটি তেজগাঁও শিল্পাঞ্চল থানার মামলা নম্বর-০৭(১১)১৪ ধারা ৩৭৯ পিসি রুজু করা হয়েছিল।
গ্রেপ্তারকৃত ইকবাল ও জাবেদের রিমান্ডে দেওয়া তথ্যমতে গত বুধবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২ টার দিকে আলি হোসেন ও মহাসিনকে গ্রেফতার করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা বিআরটিএর কাজগপত্র ও জাল পে অর্ডার তৈরির কথা স্বীকার করে।
সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের দক্ষিণ বিভাগের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার আবদুল্লাহ আল মামুন ও জনসংযোগ বিভাগের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার মোহাম্মদ সাঈদুর রহমান।

Print Friendly, PDF & Email