Home রাজনীতি আওয়ামী লীগ ও বিএনপি’র বাইরে বিকল্প গড়ে তুলতে চাই: সেলিম

আওয়ামী লীগ ও বিএনপি’র বাইরে বিকল্প গড়ে তুলতে চাই: সেলিম

307
0

নিজস্ব প্রতিবেদক: বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টির (সিপিবি) সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম বলেছেন, ‘সরকারের ভেতরে ও বাইরে যেসব বাম রাজনৈতিক দল আছে তাদেরকে সাদরে গ্রহণ করা হবে। যারা এই ৮ বাম রাজনৈতিক দলের উপলদ্ধিকে অনুভব করে আমাদের দলে শামিল হবে। কিন্তু আমাদের আসল দাবির ভেতরে আওয়ামী লীগ আর বিএনপি’র বাইরে বিকল্প গড়ে তোলার দাবি উচ্চারিত হচ্ছে। সুতরাং আওয়ামী জোটে যারা আছেন বা কোনো দল থাকলে সে কিন্তু আমাদের জোটের দাবি সংগ্রামে শামিল হওয়ার ক্ষেত্রে এমনিতেই ডিসকোয়ালিফাইড হয়ে যায়। আমাদের দাবি যেহেতু আওয়ামী লীগ ও বিএনপি’র বাইরে বিকল্প গড়ে তুলতে চাই তাই সরকারের সাথে সম্পৃক্ত কোনো শক্তিকে সঙ্গে নেয়ার প্রশ্ন উঠে না। তবে সাধারণভাবে আমাদের আহবান শুধুমাত্র বামপন্থীদলসমূহের প্রতি নয়। আমাদের ধারণা বাংলাদেশের ঘরে ঘরে বামপন্থী চিন্তাকে মনের মধ্যে ধারণ করে সারা দেশে ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছে- তাদের সবার কাছে এ জোটে শরিক হওয়ার আহবান জানান হচ্ছে। তাদের প্রতি আহবান ঘর থেকে বেরিয়ে আসুন। আমরা ঐকবদ্ধভাবে নতুন কাফেলায় ঐকবদ্ধ হয়েছি, নতুন অভিযান শুরু করেছি, আমাদের সমৃদ্ধ করে তুলুন। আপনারা যোগ দিলে কার্যকর বিকল্প গড়ে তোলা সম্ভব হবে।’

আজ মঙ্গলবার সিপিবি, বাসদসহ গণতান্ত্রিক বাম মোর্চার পক্ষ থেকে জোট গঠনের আনুষ্ঠানিক ঘোষণা উপলক্ষে সংবাদ সম্মেলন থেকে প্রস্তাব ও আশু দাবি ঘোষণা করতে গিয়ে তিনি একথা বলেন। পুরানা পল্টনের মুক্তিভবনস্থ মৈত্রী মিলনায়তনে এ সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন গণতান্ত্রিক বাম মোর্চার সমন্বয়ক ও বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক।
সংবাদ সম্মেলনে সিপিবি, বাসদ ও গণতান্ত্রিক বাম মোর্চার শীর্ষ নেতাদের মধ্যে বাসদের সাধারণ সম্পাদক খালেকুজ্জামান, সিপিবি’র সাধারণ সম্পাদক মো: শাহ আলম, বাসদ (মার্কসবাদী)’র কেন্দ্রীয় পরিচালনা কমিটির সদস্য শুভ্রাংশু চক্রবর্তী, গণসংহতি আন্দোলনের ভারপ্রাপ্ত সমন্বয়ক আবুল হোসেন রুবেল, গণতান্ত্রিক বিপ্লবী পার্টির সাধারণ সম্পাদক মোশরেফা মিশু, বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য বজলুর রশিদ ফিরোজ, ইউনাইটেড কমিউনিস্ট লীগের সাধারণ সম্পাদক মোশাররফ হোসেন নান্নু, সমাজতান্ত্রিক আন্দোলনের আহ্বায়ক হামিদুল হক, সিপিবি’র সহকারী সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদ জহির চন্দন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

Previous articleসুপ্রিম জুডিশিয়াল কাউন্সিল পাকিস্তান ও জিয়ার কনসেপ্ট: অ্যাটর্নি জেনারেল
Next articleসমন্বয় করে কাজ করতে আইন পর্যালোচনা হচ্ছে: স্থানীয় সরকারমন্ত্রী