Home আঞ্চলিক জগন্নাথপুরে নৌকা ডুবিতে নারী নিখোঁজ, শিশুসহ আহত ২

জগন্নাথপুরে নৌকা ডুবিতে নারী নিখোঁজ, শিশুসহ আহত ২

454
0

আলী আছগর ইমন, জগন্নাথপুর: সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুর উপজেলার নলুয়ার হাওরে নৌকা ডুবির ঘটনায় এক নারী পানির নিচে তলিয়ে নিখোঁজ রয়েছেন। সেই সাথে একই পরিবারের শিশুসহ আরো ২ জন আহত হন। আহতদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। এ ঘটনায় আবারো মায়ের মমতা সব থেকে বেশি প্রমাণিত হয়েছে। মা নিজের জীবন বিসর্জন দিয়ে তাঁর অবুঝ শিশুকে বাঁচিয়ে গেছেন।
জানাগেছে, রোববার বেলা ২ টার দিকে জগন্নাথপুর উপজেলা সদর থেকে একটি ছোট নৌকাযোগে উপজেলার চিলাউড়া-হলদিপুর ইউনিয়নের নলুয়া নোয়াগাঁও গ্রামের ৭ জন যাত্রী তাদের বাড়ি ফিরছিলেন। নৌকাটি নলুয়ার হাওরে গিয়ে প্রচ- ঝড়ো হাওয়া, বৃষ্টিপাত ও ঢেউয়ের কবলে পড়ে। এ সময় কাছাকাছি কোন বাড়িঘর না থাকায় নৌকার যাত্রীরা অসহায় হয়ে আল্লাহ আল্লাহ করতে থাকেন। এক পর্যায়ে কোন রকমে বাড়ির কাছে গিয়ে নৌকাটি পানির নিচে তলিয়ে যায়। এ সময় নৌকা থাকা অন্য পুরুষ যাত্রীরা নিজেদের বাঁচাতে সাঁতার কাটতে থাকলেও বেকায়দায় পড়ে যান একই পরিবারের নলুয়া নোয়াগাঁও গ্রামের বাসিন্দা আজিজ মিয়া, তাঁর স্ত্রী হেলেনা বেগম ও তাদের ৭ মাসের শিশু সন্তান। নৌকাটি ডুবে যাওয়ার সময় মা হেলেনা বেগমের কাছে তাঁর শিশু সন্তান ছিল। তখন মা তাঁর সন্তানকে বাঁচাতে প্রাণপন চেষ্টা করে সাঁতার কেটে ক্লান্ত হয়ে যান। অবশেষে মা তাঁর সন্তানকে স্বামীর কাছে দিয়ে ‘তাকে বাচাও’ বলে মা নিজের গায়ে থাকা বোরখাসহ ভিজে যাওয়া কাপড়ের ওজনের ভারে সাঁতার কেটে প্রাণ রক্ষা করতে গিয়ে এক পর্যায়ে অচেতন হয়ে পানির নিচে তলিয়ে যান। এ সময় তাঁর স্বামী আজিজ মিয়া এক হাত দিয়ে তাঁর শিশু সন্তানকে ধরেন আর অন্য হাত দিয়ে সাঁতার কাটতে থাকেন। তখন তিনি চাইলেও তার স্ত্রীকে ধরতে পারেননি। স্ত্রীকে বাঁচাতে গেলে সন্তানকে ছাড়তে হয়। আবার স্ত্রী যদি নিজেকে বাঁচাতে স্বামীকে ধরতেন তাহলে তারা সবাই পানির নিচে তলিয়ে যেতেন। এমন মর্মান্তিক পরিস্থিতিতে মা তাঁর সন্তানকে বাঁচিয়ে নিজেই তলিয়ে গেলেন গভীর জলে।
এদিকে-নৌকা ডুবির খবর পেয়ে আরেকটি নৌকা দিয়ে কিছু লোক আসেন তাদেরকে উদ্ধার করতে। এ সময় এ নৌকার বৈঠা ভেঙে যাওয়ায় নৌকাটি ঢেউ ও বাতাসের কবলে পড়ে এলোমেলো হয়ে যায়। যে কারণে আহত পিতা-সন্তানসহ অন্য যাত্রীদের উদ্ধার করা হলেও পানির নিচে তলিয়ে যাওয়া নারীকে উদ্ধার করা যায়নি বলে স্থানীয়রা জানান। তবে নিখোঁজের পর থেকে স্থানীয় এলাকাবাসীর উদ্যোগে হাওরে বিভিন্ন ধরণের জাল ফেলে খোঁজাখুজি করা হলেও কোন সন্ধান পাওয়া যায়নি। ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে চিলাউড়া-হলদিপুর ইউনিয়নের প্যানেল চেয়ারম্যান বাবুল মাহমুদ বলেন, দুর্ঘটনায় পানির নিচে তলিয়ে যাওয়া নৌকাটি উদ্ধার করা হলেও হতভাগ্য মহিলা এখনো নিখোঁজ রয়েছেন। তাঁকে উদ্ধারের প্রচেষ্টা অব্যাহত রয়েছে।

Previous articleজগন্নাথপুরে ছাত্রলীগের কর্মীসভা অনুষ্ঠিত
Next articleজগন্নাথপুরে বৃক্ষরোপন কর্মসূচি পালন