নিজামী-সাঈদীর মুক্তি চাই শ্লোগান বুকে লিখে সমাবেশে

0
283

Shibir
কুমিল্লা: কুমিল্লা জামায়াত-শিবিরের কর্মী সমর্থকরা বিশাল মিছিল নিয়ে সকাল ১০টা ১৭ মিনিটে কুমিল্লা টাউন হল মাঠে ২০ দলীয় জোটের জনসভায় অংশ নেয়। মাঠে প্রবেশ করে জনসভা মঞ্চের একেবারে সামনে চলে আসে তারা। তাদের হাতে ছিল কারাবন্দি জামায়াতের আমীর মতিউর রহমান নিজামী, নায়েবে আমীর মাওলানা দেলওয়ার হোসাইন সাঈদী, সেক্রেটারী জেনারেল আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদ ও সহকারি সেক্রেটারী জেনারেল কমারুজ্জামানের মুক্তির দাবি-সংবলিত ফেস্টুন। মিছিলের সামনে ছিল জামায়াতের কিছু কর্মী তাদের বুকে লিখা ছিলো নিজামী, মুজাহিদ, সাঈদী ও কামারুজ্জামানের মুক্তি চাই।
আট বছর পর শনিবার কুমিল্লায় এসেছেন ২০ দলীয় জোট নেত্রী ও বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া। সরকার বিরোধী আন্দোলন চাঙ্গা করতে দেশব্যাপী সফরের অংশ হিসেবে তিনি কুমিল্লায় আসেন।
কুমিল্লা টাউন হল মাঠের জনসভার স্থল সকাল সাড়ে ১০টার মধ্যে ভরাট হয়ে যায়। কর্মী সমর্থকরা মিছিল নিয়ে মাঠে আসেন। বিভিন্ন উপজেলা থেকেও দলে দলে কর্মীরা যোগ দেয়। টাউন হলে জনসভার মঞ্চ থেকে উপস্থাপকরা কর্মী সমর্থকদের সুশংখলভাবে জনসভায় অবস্থান করার আহবান জানান। বিএনপির কর্মী সমর্থকরা মাঠের পশ্চিমাংশে এবং জামায়াতের কর্মীরা মাঠের পূর্বাংশে অবস্থান নেন। মাঠে অনেক নেতা বড় আকারের বেলুন উড়িয়ে তাদের ছবি ও নাম টানিয়ে দিয়েছেন। মাঠের অনেক স্থানে ২০ দলীয় জোটের কারা বন্দি নেতাদের মুক্তির দাবিতে বড় বড় ব্যানার টানানো হয়। জাসাসের শিল্পীরা মাঝে মাঝে সঙ্গীত পরিবেশন করেন।
সকাল সাড়ে ৯টায় টাউন হল মঞ্চে আসেন জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক হাজী আমিন উর রশিদ ইয়াছিন, কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মনিরুল হক সাক্কু এবং কুমিল্লা মহানগরী জামায়াতের আমীর কাজী দ্বীন মোহাম্মদ। সকাল ১০টায় মঞ্চে আসেন জেলা বিএনপির সভাপতি ও কেন্দ্রীয় ভাইস চেয়ারম্যান বেগম রাবেয়া চৌধুরী।
জামায়াতের কর্মী সমর্থকরা বড় মিছিল নিয়ে সকাল ১০ টা ১৭ মিনিটে টাউন হলে প্রবেশ করে জনসভা মঞ্চের একেবারে সামনে চলে আসে। তাদের হাতে কারাবন্দি নেতা মতিউর রহমান নিজামী ও দেলোয়ার হোসাইন সাঈদীর মুক্তির দাবি সম্বলিত ফেস্টুন ছিল। নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবি ও গুম-খুন-হত্যা, দুর্নীতিসহ সরকারের অপশাসনের প্রতিবাদে ২০ দলীয় জোট আয়োজিত জনসভায় প্রধান অতিথি হিসেবে ভাষণ দেন বিএনপির চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়া।

Print Friendly, PDF & Email