বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে দেশে বিভাজন সৃষ্টি করা হয়েছে: জনপ্রশাসনমন্ত্রী

0
265

স্টাফ রিপোর্টার: জনপ্রশাসনমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন, ৭৫-এ বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে দেশে বিভাজন সৃষ্টি করা হয়েছে। এরপর মুক্তিযুদ্ধের বিরোধিতাকারীদের পুনর্বাসন করেছেন জিয়াউর রহমান ও জেনারেল এরশাদ। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় শাহবাগ জাতীয় জাদুঘরের সামনে ‘০১ ডিসেম্বর মুক্তিযোদ্ধা দিবস’ উদযাপন উপলক্ষে বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কেন্দ্রীয় কমান্ড কাউন্সিল আয়োজিত সমাবেশে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, অনুসারি থাকলেও জার্মানিতে এখনও কেউ হিটলারের নাম নেয় না। অথচ ৭৫-এ বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে আমাদের দেশে বিভাজন সৃষ্টি করা হয়েছে। এই বিভাজন সৃষ্টি করে মুক্তিযুদ্ধের বিরোধিতাকারীদের পুনর্বাসন করেছে জিয়াউর রহমান ও জেনারেল এরশাদ। সে পথ পেছনে ফেলে এখন আমরা যুদ্ধাপরাধীদের বিচার করছি। এটা আমাদের পরম পাওয়া।

পাকিস্তানের সমালোচনা করে তিনি বলেন, বাংলাদেশের সঙ্গে পাকিস্তানের কোনো বিষয়েই তুলনা চলে না। কারণ শেখ হাসিনার নেতৃত্বের কারণে সর্বক্ষেত্রে পাকিস্তান থেকে আমরা এগিয়ে আছি। এদের সঙ্গে আমাদের তুলনা করার কিছু নেই।

সমাবেশে নৌ-পরিবহনমন্ত্রী শাজাহান খান বলেন, বাংলাদেশের স্বাধীনতাকে নস্যাৎ করার জন্য বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে স্বাধীনতাবিরোধীরা ঐক্যবদ্ধ হয়েছে। তাদেরকে বাংলার মাটি থেকে চিরতরে বিদায় জানাতে হবে। বাংলার মাটিতে রাজাকার, আলবদর, আলসামসদের কবর রচনা করা হবে।

মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক বলেন, মুক্তিযুদ্ধের পর অস্ত্র জমা দিয়েছি কিন্তু ট্রেনিং জমা দিইনি। মুক্তিযুদ্ধের চেতনা কারও কাছে বন্ধক রাখিনি। যত অপচেষ্টা করা হোক, স্বাধীনতাবিরোধীদের মোকাবিলা করা হবে।

বাংলাদেশ ‍মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কেন্দ্রীয় কমান্ড কাউন্সিলের চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল (অব.) হেলাল মুর্শেদের সভাপতিত্বে সমাবেশে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী নজরুল ইসলাম হিরু, সংগঠনের ভাইস-চেয়ারম্যান ইসমত কাদের প্রমুখ।

Print Friendly, PDF & Email