Home জাতীয় বিচার ও নির্বাহী বিভাগে কোনও যুদ্ধ চলছে না: আইনমন্ত্রী

বিচার ও নির্বাহী বিভাগে কোনও যুদ্ধ চলছে না: আইনমন্ত্রী

312
0

নিজস্ব প্রতিবেদক: আইন বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রী অ্যাডভোকেট আনিসুল হক বলেছেন, একজনের অনেক বক্তব্যে মনে হচ্ছে বিচার বিভাগের সাথে নির্বাহী বিভাগের একটা বিরাট যুদ্ধ চলছে। আমি আশ্বস্ত করতে চাই, কোন যুদ্ধ চলছে না। রোববার দুপুরে যশোরে জেলা আইনজীবী সমিতি ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর উদ্বোধন ও মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতাকালে তিনি একথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, বিচার বিভাগের একজন কোন বিষয় নয়। বিচার বিভাগ মানে অনেককে নিয়ে। আমি এইটুকু বলতে পারি বাংলাদেশের জনগণের কল্যাণের জন্য, বিচার বিভাগের কল্যাণের জন্য মাননীয় প্রধান বিচারপতি কথা বলতে পারেন। যেগুলো সমাধানযোগ্য সেগুলো অবশ্যই সমাধান হবে।

আনিসুল হক বলেন, আমার একটি অসুবিধা হচ্ছে যে, মাননীয় প্রধান বিচারপতির সঙ্গে যখন আমি কোনও আলোচনা সভা, দাওয়াত বা প্রোগ্রামে যাই আমি তো আর শেষ বক্তা নই। তাই প্রধান বিচারপতি যখন বলেন তখন আমি তো আর সেটার জবাব দিতে পারি না।

বিচারকদের শৃঙ্খলা বিধিমালা সম্পর্কে তিনি বলেন, আমরা চেষ্টা করছি সংবিধানের ১১৬ অনুচ্ছেদ সমুন্নত রেখে বিচারকদের শৃঙ্খলা বিধিমালা তৈরি করতে। রোববার আদালত যে নির্দেশনা দিয়েছে সেই নির্দেশনা মতই কাজ হচ্ছে।

মন্ত্রী বলেন, এ বিষয়টি নিয়ে এত বড় করে এজলাসে বলার কিছু ছিল না। কারণ আমরা যখন প্রস্তাবিত বিধিমালা হস্তান্তর করি তখনই প্রধান বিচারপতিকে বলে আসি, এরপরও যদি কিছু থেকে থাকে সেই বক্তব্য জানালে আমরা সংশোধন করে নেব।

তিনি বলেন, শনিবার যখন প্রধান বিচারপতি বক্তৃতা দিলেন অনেক কিছু করা হয় নাই। কিন্তু দুঃখের হল কেউ কিন্তু বলে নাই যে, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জজদের জন্য ২২ তলা আবাসিক ভবন করে দিয়েছেন। পর্যায়ক্রমে সকল দাবি পূরণ করা হচ্ছে। কিন্তু সবকিছুকে বাংলাদেশের আলোকে গুরুত্ব দিতে হবে।

মন্ত্রী বলেন, সুপ্রিম কোট ভবনে আগে যখন বিচারকদের বসার সমস্যা ছিল তখন অ্যানেক্স ভবন করে দেয়া হয়েছে। এবার যে মুহূর্তে প্রধান বিচারপতি আমাদের জানিয়েছেন এবং তিনিও একটা জায়গা দেখিয়ে দিয়েছেন, সেই মুহূর্তে আমরা পরিকল্পনা নিয়েছি। সুপ্রিম কোট ভবন বর্তমানে যে অবস্থায় আছে এইটার ওপরে আর কিছু করা সম্ভব নয়।

জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি শরীফ আব্দুর রাকিবের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন যশোর-২ আসনের সংসদ সদস্য মনিরুল ইসলাম মনির, আইন বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব আবু সালেহ শেখ মোহাম্মদ জাফর, জেলা ও দায়রা জজ মো. আমিনুল ইসলাম, অ্যাডভোকেট কাজী আব্দুস শহীদ লালসহ অন্যান্যরা।

এর আগে আইনমন্ত্রী যশোর সার্কিট হাউজে বিচার বিভাগীয় কর্মকর্তাদের সাথে মতবিনিময় এবং বিকালে চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত ভবন উদ্বোধন করেন।

Previous articleনয়াসড়কে মেজবানি রেস্টুরেন্টকে জরিমানা
Next articleজগন্নাথপুরে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে ২৫ লক্ষ টাকার ক্ষতি