সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর মৃত্যুদণ্ডাদেশ বহাল

0
241

ঢাকা: মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর মৃত্যুদণ্ডাদেশ বহাল রেখেছে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগ। প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বাধীন আপিল বিভাগের চার সদস্যের বেঞ্চ আজ এ রায় ঘোষণা করে।

রায় ঘোষণার পর এটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম বলেছেন, “আপিল বিভাগের রায়ে জাতির প্রত্যাশা পূরন হয়েছে”।

তবে আসামি পক্ষের আইনজীবী খন্দকার মাহবুব হোসেন বলেছেন, ” আপিল বিভাগের রায়ে সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর পরিবার হতাশ হয়েছে। তারা এ রায়ের বিরুদ্ধে রিভিউ পিটিশন দাখিল করবে”।

এ সময় মি. হোসেনের কক্ষে উপস্থিত ছিলেন সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর ছেলে হুম্মাম কাদের চৌধুরী। তিনি তার পিতাকে নির্দোষ দাবি করেন।

২০১৩ সালের ১ অক্টোবর মিস্টার চৌধুরীকে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দিয়ে রায় ঘোষণা করেছিলো আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল।

তার বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধের সময় সংঘটিত ২৩ অপরাধের অভিযোগ আনা হয়, যারা মধ্যে ৯টি সন্দেহাতীতভাবে প্রমাণিত হয়।

এর মধ্যে চারটিতে মৃত্যুদন্ড এবং পাঁচটিতে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দেয়া হয়েছিলো।

এর মধ্যে ছিল চট্টগ্রামের রাউজানে কুন্ডেশ্বরী ঔষধালয়ের মালিক নূতন চন্দ্র সিংহ ও হাটহাজারীর একজন আওয়ামী লীগ নেতা শেখ মোজাফফর হোসেনকে তার পুত্রসহ হত্যা, এবং একাধিক এলাকায় গণহত্যা, ধর্ষণ, অগ্নিসংযোগ, লুটপাট ও দেশত্যাগে বাধ্য করার ঘটনা।

২০১৩ সালের পয়লা অক্টোবর মি. চৌধুরীকে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদন্ডের রায় দেয়া হয়। অক্টোবরের ২৯ তারিখ মি. চৌধুরী এ রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করেন।

চলতি বছরের ১৬ই জুন আপিলের শুনানি শুরু হয় এবং তা শেষ হয় ৭ই জুলাই। ওই দিন আদালত রায় ঘোষণার জন্য ২৯ জুলাই তারিখ ধার্য করেন।

আপিল বিভাগের রায়ে মৃত্যুদন্ড বহাল থাকলেও একটি অভিযোগে পাওয়া সাজা থেকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে মি. চৌধুরীকে।

একাত্তরের মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলায় দন্ডিত দুজনের ফাঁসির আদেশ ইতিমধ্যে কার্যকর হয়েছে। এরা হলেন জামায়াতে ইসলামীর নেতা আবদুল কাদের মোল্লা, এবং মুহাম্মদ কামারুজ্জামান।

Print Friendly, PDF & Email