Home বিশেষ সংবাদ সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে কোনো আপোশ করা হবে না: সিইসি

সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে কোনো আপোশ করা হবে না: সিইসি

315
0

নিজস্ব প্রতিবেদক : সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে কোনো আপোশ করা হবে না বলে জানিয়েছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নুরুল হুদা। তিনি বলেছেন, গণতন্ত্র রক্ষায় সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে কারো সঙ্গে আপোশ করা হবে না। গণতন্ত্রের পূর্বশর্ত সঠিক ও নির্ভুল ভোটার তালিকা করে নির্বাচন অনুষ্ঠান। মঙ্গলবার ময়মনসিংহের টাউনহল সংলগ্ন অ্যাডভোকেট তারেক স্মৃতি অডিটোরিয়ামে ভোটার তালিকা হালনাগাদ কর্মসূচির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এ সব কথা বলেন।

প্রধান নির্বাচন কমিশনার সবার সহযোগিতা কামনা করে দৃঢ়তার সঙ্গে বলেন, ‘যেসব আইন-বিধিবিধান আমাদের হাতে তুলে দেওয়া হয়েছে, সেই আলোকে নির্বাচন অনুষ্ঠান করব। এ জন্য সকলের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় নির্বাচনকে গ্রহণযোগ্য উপায়ে ভালোভাবে সম্পন্ন করতে আমরা দৃঢ় প্রতিজ্ঞ।’

তিনি বলেন, নির্বাচন কমিশনের উদ্দেশ্য সঠিক ভোটার তালিকা প্রণয়ন এবং সেই তালিকার মাধ্যমে অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন অনুষ্ঠান করা। যারা ভোটার হবেন, তারা দায়িত্ববোধ থেকে নির্ভুল তথ্য দিয়ে সহযোগিতা করবেন।

নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ের অতিরিক্ত সচিব মো. মোখলেসুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার, জাতীয় পরিচয়পত্র নিবন্ধন অনুবিভাগের মহাপরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল সাইদুল ইসলাম, ময়মনসিংহ বিভাগের ভারপ্রাপ্ত কমিশনার মো. মোজাম্মেল হক, ময়মনসিংহ রেঞ্জের ডিআইজি নিবাস চন্দ্র মাঝি, ময়মনসিংহের ভারপ্রাপ্ত জেলা প্রশাসক আরিফ আহমেদ খান, পুলিশ সুপার সৈয়দ নুরুল ইসলাম ও আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা মোহা. ইসরাইল হোসেন।

এ সময় নির্বাচন কমিশনার মো. রফিকুল ইসলাম, কবিতা খানম ও ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) শাহাদাত হোসেন চৌধুরী মঞ্চে উপবিষ্ট ছিলেন।

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে পঞ্চমবারের সারা দেশে ভোটার তালিকা হালনাগাদ কার্যক্রম শুরু করেছে নির্বাচন কমিশন। ২০১৫ সালের পর বাড়ি বাড়ি গিয়ে তথ্য সংগ্রহ করা হবে। কমিশন আশা করছে, বাদ পড়া ৩৫ লাখসহ নতুন ভোটার যুক্ত হবে তালিকায়। নতুন ভোটারের তথ্য সংগ্রহ চলবে ৯ আগস্ট পর্যন্ত। ২ জানুয়ারি খসড়া তালিকা প্রণয়নের পর চূড়ান্ত তালিকা প্রকাশ করা হবে ৩১ জানুয়ারি।

নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার বলেন, রাজনৈতিক দলগুলোর মধ্যে ঐক্যমত প্রয়োজন। নির্বাচনের মাঠ কী পদ্ধতিতে লেভেল প্লেয়িং করা যায়, সেই ব্যাপারে সুশীল সমাজ ও বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের সঙ্গে সংলাপ হবে এবং সবার মতামত নেওয়া হবে। তাদের মতামত গ্রহণযোগ্য হলে কমিশন তা প্রয়োগ করবে।

পরে শহরের পণ্ডিতবাড়ি সড়কের ফেরদৌস আহমদ স্বপনের বাসায় দুই ছেলে ও মেয়েকে নতুন ভোটার তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করে মাঠ পর্যায়ে হালনাগাদ ভোটার তালিকার কার্যক্রম শুরু করেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার।

Previous articleদুর্যোগ মোকাবেলায় বাংলাদেশের প্রস্তুতি ভালো: জয়
Next articleজলাবদ্ধতার কারণ খাল পুনঃখননে বিলম্ব: বর্ষার আগেই কাজ শেষ করার সুপারিশ