দেশের অগ্রযাত্রাকে কেউ বাধাগ্রস্ত করতে পারবে না: বাণিজ্যমন্ত্রী

0
148

স্টাফ রিপোর্টার: আওয়ামী লীগ উপদেষ্টা পরিষদ সদস্য ও বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশের অগ্রযাত্রাকে কেউ বাধাগ্রস্ত করতে পারবে না। তিনি বলেন, আগামীতে বিশ্বে যে ১০টি দেশ উন্নতি লাভ করবে, বাংলাদেশ তার মধ্যে একটি। মন্ত্রী আজ ভোলা জেলার বোরহানউাদ্দিন উপজেলার শাহবাজপুর গ্যাস ফিল্ডের ৪ নম্বর কুপের ওয়ার্কওভার কাজের উদ্বোধনকালে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় একথা বলেন।

তোফায়েল আহমেদ বলেন, যারা ৯২ দিন ধংষযজ্ঞ চালিয়ে দেশের অর্থনীতিকে ক্ষতিগ্রস্ত করতে চেয়েছিল, যারা যুদ্ধাপরাধীদের বিচার কার্যে বাধা দিয়েছিল, তারাই বিভিন্ন নামে দেশে জঙ্গী তৎপরতা চালাচ্ছে। আমাদের আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী অত্যন্ত দক্ষতার সাথে জঙ্গী অপতৎপরতা মোকাবেলা করছে। ইতোমধ্যে জঙ্গী ইন্ধনদাতাদের চিহ্নিত করতেও সক্ষম হচ্ছে। বাণিজ্যমন্ত্রী একাত্তরে বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে যেভাবে ঘরে ঘরে দূর্গ গড়ে তোলা হয়েছিল, তেমনি তার কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বেও প্রত্যেক ঘরে ঘরে সন্ত্রাস বিরোধী দূর্গ গড়ে তোলার আহবান জানান। এ সময় মন্ত্রী তার কেনিয়া সফরের কথা উল্লেখ করে বলেন, কেনিয়ার লোক সংখ্যা আমাদের চার ভাগের এক ভাগ, তাদের ভৌগোলিক সীমা রেখা আমাদের চার গুণ। অথচ এ বছর কেনিয়ার রপ্তানি হ‡য়েছে ছয় বিলিয়ন ডলার, আর বাংলাদেশের হয়েছে ৩৪ বিলিয়ন ডলার। তোফায়েল আহমেদ আরো বলেন, বর্তমানে বহুদেশ বাংলাদেশকে রোল মডেল হিসেবে বেছে নিয়েছে। আন্তর্জাতিক বিশ্বে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্ব প্রশংসিত হচ্ছে। বিশ্ব নেতারা সবাই প্রধানমন্ত্রীর পাশে আছেন। ভোলাকে একটি সম্ভবনাময় জেলা হিসেবে উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, এখানে পর্যাপ্ত গ্যাসের মজুদ রয়েছে। ইতোমধ্যে চারটি কূপের খনন শেষ হয়েছে। আরো দুটি কূপ খনন করা হবে। যা থেকে ভোলা হবে একটি শিল্প নগরী। জেলার বেকারত্ব দূর হয়ে ব্যাপক কর্মসংস্থানের সৃষ্টি হবে।

এ সময় আরো বক্তব্য রাখেন, ভোলা-২ আসনের সংসদ সদস্য আলী আজম মুকুল, জ্বালানি ও খনিজ মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. নাজিম উদ্দিন চৌধুরী, পেট্রোবাংলার চেয়ারম্যান ইসতিয়াক আহম্মেদ, বাপেক্স ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আতিকুজ্জামান, ভোলার জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ সেলিম উদ্দিন, পুলিশ সুপার মো. মোকতার হোসেন, উপজেলা চেয়ারম্যান মহব্বতজান চৌধুরী এবং পৌর-মেয়র রফিকুল ইসলাম। ভোলায় ছয়টি কূপ থেকে গ্যাস উত্তোলন শুরু হলে মজুদ এক ট্রিলিয়ন ছাড়িয়ে যাবে বলে বাপেক্স কর্মকর্তারা নিশ্চিত করেন। মন্ত্রী উপজেলার টগবী ইউনিয়নের মুন্সীরহাট ও জেলা সদরের ভেদুরিয়া ইউনিয়নের ৫ ও ৬ নম্বর গ্যাস কূপের সাইট পরিদর্শন করেন। পরে মন্ত্রী আইন-শৃঙাখলা বিষয় নিয়ে জেলা পর্যায়ের কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠক করেন।

Print Friendly, PDF & Email